LOGo  


২৪ ঘন্টা আপনার পাশে, আপনার সাথে ডেইলি নারায়ণগঞ্জ ২৪ ডটকম

dailynarayanganj24@gmail.com

 

 

না’গঞ্জে নিরাপদ ভোট কেন্দ্র চায় ভোটারা

ডেইলি নারায়ণগঞ্জ টুয়েন্টিফোর ডটকমঃ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে ঘিরে

প্রার্থীর পক্ষে কাজ করার প্রস্তুতি গ্রহন করেছেন নারায়ণগঞ্জের রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দরা। তবে সাধারণ ভোটারদের মাঝে নির্বাচনকে নিয়ে চলছে আলোচনা ও সমালোচনা। আর নতুন ভোটারদের নেই নির্বাচনকে নিয়ে আগ্রহের কমতি। এবারের নির্বাচনে ভোট কেন্দ্রে পরিবেশ সান্ত থাকলে নিজের ভোট দিতে প্রস্তুত আছেন সাধারণ মানুষ। তবে অবশ্যই সেখানে থাকতে হবে ভোটারদের নিরাপত্তার নজরদারী বলে দাবী করেন স্থানীয় ভোটাররা।

এ বিষয় কয়েক জন খেটে খাওয়া ভোটারদের সাথে আলাপ কালে তারা বলেন, নির্বাচনে ভোট দেয়া আমার গণতান্ত্রিক অধিকার আমরা খেটে খাওয়া মানুষ কাজ করি পরিবার পরিজনের সাথে দু’বেলা ভাত খাওয়ার আশায়। কে ক্ষমতায় এলো আর কে এলোনা সেটা আমাদের দেখার বিষয় না। কারন যে দলই ক্ষমতায় আসুক কেউ এসে খাবার মোখে তুলে দেবে না। আমাদের পরিশ্রম করেই খেতে হবে। তবে সবচেয়ে মজার বিষয় হলো ভোটের দিন আমাদের বাড়ী থেকে ভোট কেন্দ্র পর্যন্ত প্রার্থীর লোকেরা প্রায় কোলে তুলে নিয়ে যায়। ভোট কেন্দ্রে যাওয়ার পর তাদের পছন্দের প্রার্থীদের ভোট দেয়ার কথা বলে। ভোট দেয়া শেষ হয়ে গেলে আমাদের আর খবর থাকে না। তবে খুব ভাল লাগে বড় বড় নেতারা নির্বাচন এলে বাড়ীতে গিয়ে আমাদের খবর নেন। আবার দুঃখ লাগে ভোট শেষ হয়ে গেলে ঐ নেতার সাথে দেখা করার সুযোগও আমাদেরহ য় না। আমরা কোন সুযোগ সন্ধ্যানী নেতাকে চাই না যে নিজের প্রয়োজনে আমাদের কাছে আসে প্রয়োজন শেষ আমাদের ভুলে যায়। আমরা তাদের কাছে ভাত মাছ চাই না শুধু চাই পরিবার পরিজনের নিরাপত্তা।

তারা আরও বলেন, বহু দিন পর জাতীয় নির্বাচনে ভোট দেয়ার সুযোগ পেয়েছি আমার সিদ্ধান্ত গোপন কক্ষে গিয়ে ভোটের মাধ্যমে জানাতে পারবো। তবে আমরা যখন দেখবো ভোট কেন্দ্র আমাদের জন্য নিরাপদ তখনই ভোট দিতে যাবো। আর যদি কোন সংঘর্ষের আশংখা দেখি তাহলে সেই দিন বাড়ী থেকে বের হবো না। কারন সবার আগে আমরা আমাদের পরিবারের ভবিষ্যত নিয়ে চিন্তা করি। যদি আমার বা আমাদের পরিবারের কিছু হয়ে যায় তাহলে এর দায় ভার কেউ নিবে না। সারা জীবন সেই বোঝা আমাদের কেই ভয়ে ভেড়াতে হবে। আমরা নিরাপদ ভোট কেন্দ্র চাই ভোট দেয়ার জন্য।

অপর দিকে নতুন ভোটাররা বলেন, জীবনের প্রথম ভোট দেয়ার সুযোগ হয়েছে এর আগে কখনই ভোট দেইনি। যার ফলে অবশ্যই আমাদের জন্য আনন্দের বিষয়। আমরা চাই সৎ যোগ্য প্রার্থীদেরকেই আমরা ভোট দিবো। যিনি দেশ ও দশের উন্নয়নের জন্য কাজ করবেন। লোক দেখানো উন্নয়ন করা প্রার্থীদের আমরা নতুন প্রজন্ম কখনই সমর্থন করবো না। কারন আমরা নতুন প্রজন্ম অবশ্যই দেশের ভবিষ্যত নিয়ে বুঝতে শিখেছি। আর নির্বাচনের দিন ভোট কেন্দ্রের পরিবেশ সুন্দর থাকলে অবশ্যই আমরা আমাদের গণতান্ত্রিক অধিকার ভোট দিয়ে প্রতিষ্ঠিত করবো।

সংবাদ শিরোনাম